রাজনীতি

অর্থমন্ত্রকে সংবাদ মাধ্যমকে নিষিদ্দ করল বিজেপি সরকার


ওয়েব ডেস্ক ১১ই জুলাই  ২০১৯:  বিরোধীরা মোদী সরকারকে ফ্যাসিবাদী বলে আখ্যা করে থাকে । তবে কিছু কিছু এমন সিদ্ধান্তও মোদী সরকার অতীতে নিয়েছে যা ফ্যাসিবাদী শব্দটাকে মান্যতা দেয়। সাম্প্রতিক কালে এরকমই এমন এক সিদ্ধান্ত মোদী সরকার নিয়েছে যা নিঃসন্দেহে বিরোধীদের কণ্ঠ আরও জোরালো করবে ।   কেন্দ্রীয় বাজেট পেশ হওয়ার আগে, গোপনীয়তা রক্ষার খাতিরে বরাবরই অর্থ মন্ত্রকে সংবাদমাধ্যমের প্রবেশাধিকার সাময়িক ভাবে প্রত্যাহার করে সরকার। এবারও হয়েছিল। কিন্তু ইতিহাসে এই প্রথম, বাজেট পেশ হওয়ার পরেও তা বহাল রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হল। এখন থেকে নর্থ ব্লকে আগাম অনুমতি ছাড়া সংবাদমাধ্যমের যাতায়াত নিষিদ্ধ। এমনকী সরকার অনুমোদিত, অর্থাৎ ‘‌অ্যাক্রেডিটেড’‌ সাংবাদিকেরাও এই নিষেধাজ্ঞার আওতায় থাকবেন।

উল্লেখ্য, এত দিন পর্যন্ত সাউথ ব্লক, অর্থাৎ প্রতিরক্ষা মন্ত্রক এবং প্রধানমন্ত্রীর দফতরে যাতায়াতের ক্ষেত্রে সংবাদমাধ্যমের ওপর জারি থাকত এই বিধিনিষেধ। আগাম অনুমতি না নিয়ে যাওয়া যেত না। কিন্তু অর্থ মন্ত্রকের ক্ষেত্রে তেমন কড়াকড়ি কখনও করা হয়নি। শনিবার কেন্দ্রীয় বাজেট পেশের পরদিন থেকে এই নতুন নিষেধাজ্ঞা জারি হয়েছে দেখে দিল্লীর সংবাদমাধ্যমের প্রতিনিধিরা অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামনের সঙ্গে আলোচনায় বসেন। বৈঠকে আলোচ্য বিষয়গুলি ‘‌অফ দ্য রেকর্ড’‌ রাখার অনুরোধ জানান সীতারামন। কি এমন আলোচ্য বিষয় ছিল যে ও গুলো অফ দা  রেকর্ড রাখতে বললেন সীতারাম ? প্রশ্ন উঠছে ।

Related posts

Close