রাজনীতি

বিজেপির রোড শো'র জন্যই অশান্তি , কমিশন জারি করল ৩২৪ নম্বর ধারা, আগামীকাল ১০টার মধ্যেই প্রচার শেষ করতে হবে


ওয়েব ডেস্ক ১৫ ই মে ২০১৯:রাজ্যের মানুষ কোনো কিচ্ছুই করলনা কিন্তু আদতে শাস্তি পেতে হচ্ছে সেই রাজ্যের মানুষকেই । বহিরাগতরা যাদের এই বাংলার সাথে কোনো সম্পর্ক নেই তারাই বিদ্যাসাগরের মূর্তি ভাঙচুর করল আর এদিক থেকে বাংলায় নির্বাচনী প্রচার, কমিশন কালকের মধ্যে শেষ করতে বললেন । এতে আদতে ক্ষতি কার হল তার জন্য কোনো পুরস্কার নেই । প্রসঙ্গত মঙ্গলবার সন্ধ্যায় বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহের রোড চলাকালীন হিংসার ঘটনার পর, রাজ্যে শেষ দফার ভোটপ্রচারের সময়সীমা কমিয়ে দিল নির্বাচন কমিশন।

বৃহস্পতিবারের মধ্যে প্রচারপর্ব শেষ করতে হবে জানিয়ে দিল কমিশন। এই প্রথমবার সংবিধানের ৩২৪ নম্বর ধারা  প্রয়োগ করল নির্বাচন কমিশন। এই ধারা অনুযায়ী, নির্বাচন কমিশনকে “পরিচালনা, নির্দেশ দেওয়া এবং ভোট নিয়্ন্ত্রণ করার” ক্ষমতা দেওয়া হয়েছে। ১৯ মে শেষ দফার ভোটগ্রহণ। শেষ দফায় রাজ্যের ৯ আসনে ভোটগ্রহণ হবে।কমিশন জানিয়ে দেয়, অশান্তির কারণে, বৃহস্পতিবার রাত ১০টার মধ্যে রাজ্যের প্রচারপর্ব শেষ করতে হবে। শুক্রবার বিকেল ৫টায় শেষ দফার ভোটপ্রচার শেষ হওয়ার কথা ছিল। পাশাপাশি দুই অফিসার স্বরাষ্ট্র দফতরের প্রধান সচিব এবং সিআইডির এডিজিকে অপসারনের নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন।ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগরের মূর্তি ভাঙা  নিয়ে তৃণমূল কংগ্রেস ও বিজপির রাজনৈতিক লড়াই চরমে ওঠে। তারপরেই এই সিদ্ধান্ত নিল নির্বাচন কমিশন।নির্বাচন কমিশন সত্যি বাড়াবাড়ি রকম কিছু করল কিনা তার মূল্যায়ন ভবিষ্যতের জন্য তোলা রইল ।

Related posts

Close